বিয়ের আগেই গর্ভবতী মেয়ে! চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত বাবার

ওয়েব ডেস্ক, ২৯ নভেম্বরঃ নিজের গর্ভবতী মেয়েকে খুনের অভিযোগ উঠল বাবার বিরুদ্ধে। মৃতার নাম ছায়া দুকরে(২০)। মর্মান্তিক ওই ঘটনাটি ঘটেছে মহারাষ্ট্রের জালনা জেলার ভোকারদান গ্রামে। ওই ঘটনায় পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Top News

জানা গিয়েছে, পুণের একটি কলেজে পড়তো ছায়া। সম্প্রতি তার এক সহপাঠীর সঙ্গে প্রনয়ের সম্পর্কে লিপ্ত হয় ছায়া। কয়েকসপ্তাহ আগে ছায়া জানতে পারে তিনি গর্ভবতী হয়ে পড়েছেন। তার বাবা ঘটনাটি জানতে পারলে মেনে নিতে পারেননি তিনি। অভিযোগ, পরিবারের সম্মান বাঁচানোর জন্য মেয়েকে মেরে ফেলার ছক কষেন তিনি। এরপর আত্মীয়দের সাহায্য নিয়ে তিনি তার গর্ভবতী মেয়েকে খুন করেন। এরপর ছায়াকে ধাওয়াদা-মেহেগাঁও রাস্তার পাশে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশের গোয়েন্দারা ও ফরেনসিক টিম। পুলিশের প্রাথমিক তদন্তে জানান হয়, শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছে ছায়াকে। তাঁর মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়।

এরপর তদন্তে নেমে গোয়েন্দারা জানতে পারেন, ছায়াকে খুন করার পিছনে ছায়ার বাবা সহ আরও চার আত্মীয়ের হাত রয়েছে। এরপরই ছায়ার বাবাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পাশাপাশি পরিবারের আরও ৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।