মা অবসাদে ভুগলে সন্তানের উপর কি প্রভাব পরে জানেন?

মা এর অবসাদ প্রভাব ফেলছে শিশুর উপর। মা অবসাদে ভুগলে তার প্রভাব পড়তে পারে শিশুর বুদ্ধিমত্তার ও মানসিক বিকাশের উপর। এমনটাই বলছে এক সমীক্ষা। সময় বিশেষে অনেকেরই মেজাজ ঘন ঘন বদলাতে থাকে তাই এই বিষয়টিকে খুব একটা গুরুত্ব দিয়ে দেখা হয় না।

কিন্তু মন খারাপ বা অবসাদ দীর্ঘস্থায়ী হলে অবশ্যই তাকে গুরুত্ব দেওয়া উচিত। কারণ, সাম্প্রতিক এক সমীক্ষায় জানানো হয়েছে, মা অবসাদে ভুগলে তার নেতিবাচক প্রভাব সবচেয়ে বেশি পড়ে তার সন্তানের বুদ্ধিমত্তা ও মানসিক বিকাশের উপর। তাই কোনও মহিলা যদি দীর্ঘদিন অবসাদে ভোগেন, তার দ্রুত এবং সঠিক চিকিৎসা অত্যন্ত জরুরি। ৫ থেকে ১৬ বছর বয়সীদের এবং তাদের মায়েদের নিয়ে একটি দীর্ঘ সমীক্ষা চালানো হয়।সমীক্ষায় শিশুদের বুদ্ধিমত্তার সঙ্গে মায়েদের মানসিক অবস্থার তুলনা মূলক পরিক্ষা করা হয়।

জানা যায়, যে সব মায়েদের মধ্যে হতাশা, অবসাদ কম বা নেই, তাঁদের সন্তানদের বুদ্ধিমত্তা বেশি। কারণ, মা অবসাদগ্রস্ত থাকলে যে বয়সে শিশুর মানসিক বিকাশ হয়, অর্থাৎ ৫ থেকে ১৬ বছর বয়সীদের সঠিক শিক্ষা দিয়ে উঠতে পারেন না মায়েরা। শিশুর মানসিক বিকাশের জন্য মায়ের সহায়তা একান্ত প্রয়োজন হয়। মা সব থেকে ভালো বুঝতে পারেন কোন বয়সে শিশুকে কীভাবে শিক্ষা দেওয়া যাবে এবং সে সেটা কতটা শিখতে পারবে। তাই মায়েদের নিজের সন্তানের স্বার্থে যতটা সম্ভব নিজেকে অবসাদ থেকে দূরে রাখার চেষ্টা করতে হবে।

আমাদের খবর টেলিগ্রামে পেতে ক্লিক করুন নীচের লিঙ্কে:  http://t.me/khaboria24
হোয়াটস্যাপে আমাদের সাথে যুক্ত হতে এই লিংকে ক্লিক করুন:  http://bit.ly/2EOn96o

ফেসবুকে আমাদের সাথে যুক্ত হতে এই লিংকে ক্লিক করে লাইক করুন: https://www.facebook.com/khaboria24/