দ্রুত মাথাভাঙ্গা মহকুমা ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ শেষ করার নির্দেশ

কাজল রায়, মাথাভাঙ্গা: গত বছর নভেম্বর মাসে ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ শেষ করার কথা ছিল, কিন্তু সঠিক সময়ে কাজ শেষ না হওয়ায় মাথাভাঙ্গা মহকুমা হাসপাতালে ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ পরিদর্শনে আসল রাজ্যের স্বাস্থ্য দপ্তরের এক বিশেষ প্রতিনিধি দল। কেন নির্দিষ্ট সময়ে ব্লাড ব্যাঙ্কের নির্মাণ কাজ শেষ হল না, সে বিষয়ে পূর্ত দপ্তরের আধিকারিকদের কাছে কৈফিয়ত চাইলেন রাজ্যের ডেপুটি ডিরেক্টর হেলথ সার্ভিস( ব্লাড সেফটি) ডঃ স্বপন সরকার। বৃহস্পতিবার দুপুর বেলায় মাথাভাঙ্গা মহকুমা হাসপাতালে নির্মীয়মাণ ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ পরিদর্শনে আসেন ডঃ স্বপন সরকারের নেতৃত্বে তিন সদস্যের স্বাস্থ্য দপ্তরের এক প্রতিনিধি দল। কেন সময়ের মধ্যে কাজ শেষ হল না তা পূর্ত দপ্তরের অ্যাসিস্টেন ইঞ্জিনিয়ারের কাছে জানতে চান। আগামী মে মাসের মধ্যে ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ শেষ করার নির্দেশ দেন।

Top News

এদিন ব্লাড ব্যাঙ্কের ভবনের জায়গা দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে ইতিমধ্যে ব্লাড ব্যাঙ্কের জন্য রেফ্রিজারেটর, অ্যালাইজারিভার, মাইক্রোস্কোপ সহ নানান ধরণের যন্ত্রপাতি হাসপাতালের গুদামে এসে পরে রয়েছে। যদিও হাসপাতালে একটি ব্লাড স্টোরেজ ইউনিট আছে। তবুও কোচবিহার এমজেএন হাসপাতালে রক্তের সমস্যা থাকায় পর্যাপ্ত রক্ত মাথাভাঙ্গা হাসপাতালে পাওয়া যায় না। এখানে পূর্ণাঙ্গ ব্লাড ব্যাঙ্ক চালু হলে রক্তের সমস্যা মিটবে বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ আশাবাদী। হাসপাতালের সুপার ডঃ দেবদীপ ঘোষ জানান, “সব ঠিকঠাক থাকলে খুব শীঘ্রই ব্লাড ব্যাঙ্ক চালু করা যাবে বলে প্রতিনিধিদল আশ্বাস দিয়েছেন।”