ফের তুফানগঞ্জে বিজেপি-তৃনমুল সংঘর্ষে উত্তেজনা, আহত ৫

কোচবিহার, ১৬ আগস্টঃ বিজেপি কর্মীদের বাড়িতে ঢুকে মারধর করার অভিযোগ তৃনমূলের বিরুদ্ধে। ওই ঘটনায় আহত হয়েছে ৫ জন বিজেপি কর্মী সমর্থক। ঘটনাটি ঘটেছে তুফানগঞ্জ ১নং ব্লকের বালাভুত এলাকায়। ওই ঘটনার পর আহতদের উদ্ধার করে তুফানগঞ্জ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করে স্থানীয়রা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যায় তুফানগঞ্জ থানার পুলিশ। এলাকায় উত্তেজনা থাকায় ঘটনাস্থলে মোতায়েন করা হয় পুলিশ। ওই ঘটনায় বেশ কয়েকজন তৃনমূল কংগ্রেসের স্থানীয় নেতৃত্বের বিরুদ্ধে তুফানগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

Top News

পুলিশ সুত্রে জানা যায়, আহত বিজেপি কর্মীরা হলেন রেজাউল করিম মিয়া,সিরাজুল করিম, বজলে রহমান, মফিদা বিবি সহ ৫ জন। একজন মহিলার নাম এখন জানা যায় নি। আহতদের মধ্যে ২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ার কোচবিহার মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অভিযোগ, গতকাল রাতে একদল তৃনমুল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা বিজেপি কর্মী রেজাউল করিম মিয়ার বাড়িতে হামলা চালায় বাড়িতে ঢুকে তাঁকে বাঁশের লাঠি,ধারাল অস্ত্র নিয়ে তার উপর চরাও হয়। এবং মারধর করে বলে অভিযোগ। সেই সময় তার পরিবারের লোকজন বাঁচাতে গেল  তাদেরকেও বেধরক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। ওই ঘটনায় ২ মহিলা সহ ৫ জন আহত হয়। আহতদের প্রথমে তুফানগঞ্জ মহকুমা হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হয়। এদের মধ্যে ৩ জন তুফানগঞ্জ মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে এবং বাকি ২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় কোচবিহার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

কোচবিহার জেলা বিজেপির মিডিয়া কনভেনার পার্থ সারথী সাহা বলেন, গতকাল রাতে তৃনমূলের প্রধানের নেতৃত্বে আমাদের বিজেপি কর্মী রেজাউল করিম মিয়ার বাড়িতে হামলা করে। ওই ঘটনায় ২ মহিলা সহ ৫ জন আহত হয়। তারা বর্তমান তুফানগঞ্জ ও কোচবিহার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। আমরা পুলিশ প্রশাসনকে জানিয়েছি তৃনমূলের ওই দুষ্কৃতীদের যদি গ্রেপ্তার করা না হয় তাহলে আমরা বৃহত্তর আন্দোলনে নামব।

যদিও ওই অভিযোগ অস্বীকার করে তৃনমূলের স্থানীয় নেতৃত্ব শওকত ব্যাপারি। তিনি বলেন, ‘ঘটনাটি শুনেছি তবে এটুকু বলেতে পারি ওই ঘটনার সাথে তৃনমূলের কেউ যুক্ত নয়। ওটা বিজেপির গোষ্ঠী কোন্দল।’