মৃত কর্মীর ক্ষতিপূরণ ও পরিবারের কাজের দাবিতে তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাজ বন্ধ করে বিক্ষোভ

পার্থ দাস, বীরভূমঃ বক্রেশ্বর তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের চার নম্বর ইউনিটের বয়লারে কাজ চলছিলো। শনিবার বিকেল পাঁচটা নাগাদ গনেশ মন্ডল নামে এক কর্মীর মাথায় ইকোনোমাইজার কয়েল পরে যায়। কর্মীরা জানিয়েছেন ওই কয়েলের ওজন প্রায় ৩ টন।

Top News

গনেশের সহকর্মীদের দাবি, দুর্ঘটনার পরই এক আধিকারিক গাড়ি চাওয়া হয়। কিন্তু সিউড়ি সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য গাড়ি পেতে অনেকটা দেরি হয়ে যায়। আহতকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাকে মৃত বলে ঘোষনা করেন চিকিত্সক। এদিকে রবিবার মৃতের পরিবারকে ক্ষতিপূরন, পরিবারকে কাজের দাবীতে তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে কাজ বন্ধ করে দেন সহকর্মীরা। তাদের সঙ্গে বিক্ষোভে সামিল হন অন্য কর্মীরাও।

জানা গিয়েছে মৃত গনেশ মন্ডলের  (৩২)বাড়ি নদিয়া জেলার কালিনারায়ন পাড়ায়। গত ১৭ জুলাই একটি ঠিকাদার সংস্থার অধীনে ৭৬ জন কর্মী বক্রেশ্বর তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ইউনিট রক্ষনাবেক্ষনের জন্য আসেন। ওই দলেই ছিলেন গনেশ মন্ডল বলে জানা গিয়েছে।