জঙ্গি হামলা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য, সিধুকে পঞ্জাবের মন্ত্রিসভা থেকে সরানোর গণদাবি, চাপে কংগ্রেস

ওয়েব ডেস্ক, ১৭ ফেব্রুয়ারিঃ পুলওয়ামা আত্মঘাতী জঙ্গি হামলার ঘটনায় যখন ক্ষুব্ধ গোটা দেশ ঠিক সেই সময় পাকিস্তানকে কাঠগড়ায় তুলতে নারাজ প্রাক্তন ক্রিকেটার তথা কংগ্রেস নেতা নভজ্যোত সিং সিধু। ঘটনার পর কপিল শর্মার শো থেকে বাদ দিয়ে দেওয়া হয় সিধুকে। এবার তাঁকে পঞ্জাবের মন্ত্রিসভা থেকে সরানোর গণদাবি উঠল।

Top News

পুলওয়ামা হামলার পর সিধু মন্তব্য করেছিলেন, পাকিস্তানের সঙ্গে বিষয়টি আলোচনা করা উচিৎ ভারতের। তাঁর বক্তব্য, কোনও এক ব্যক্তির জন্য গোটা দেশকে দায়ী করা যায় না। তাঁর ওই মন্তব্যের পরেই বিতর্কের ঝড় ওঠে দেশ জুড়ে। প্রাক্তন ক্রিকেটারের এহেন মন্তব্যের পর তাঁকে নিয়ে সমালোচনায় সরব হন নেটিজেনরা। কপিল শর্মার শো থেকে সিধুকে বাদ দেওয়ার গণদাবি ওঠে। সেই দাবির মুখে সিধুকে ছেঁটে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় চ্যানেল কর্তৃপক্ষ। এবার পঞ্জাবের মন্ত্রিসভা থেকে তাঁকে সরানোর গণদাবিতে সরব দেশবাসি। গণদাবির মুখে চাপ বাড়ছে কংগ্রেসের। ফলে এখন কী সিদ্ধান্ত নেয় রাহুল গান্ধী সেটার দিকেই তাকিয়ে গোটা দেশ।

এর আগে পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানের আমন্ত্রণগ্রহণ নিয়ে কাঠগড়ায় উঠেছিলেন ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটার। ওই অনুষ্ঠানে পাকিস্তানি সেনাপ্রধানকেও জড়িয়ে ধরেছিলেন সিধু। সেনিয়েও বিতর্ক তৈরি হয়েছিল।