বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে, ২৭ বছর পর সেমিফাইনালে ইংল্যান্ড

ওয়েব ডেস্ক, ৪ জুলাইঃ বিশ্বকাপে লিগের শেষ ম্যাচে নিউ জিল্যান্ডকে ১১৯ রানে হারিয়ে, তৃতীয় দল হিসেবে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে উঠল ইংল্যান্ড। বুধবার ইংল্যান্ডের সামনে ছিল মাস্ট উইন মাচ। নিউজিল্যান্ডকে না হারাতে পারলে ছিটকে যেতে হত ইংল্যান্ডকে। এই অবস্থায় চেস্টার-লে-স্ট্রিটের রিভারসাইড গ্রাউন্ডে খেলতে নেমেছিল ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ড। ১৯৯২-এর পর আবার সেমিফাইনালে পৌঁছল ইংল্যান্ড।

Top News

বুধবার টস জিতে প্রথমে ব্যাট করারই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন ইয়ন মর্গ্যান। ৫০ ওভারে ৩০৫-৮-এ শেষ হয় ইংল্যান্ডের ইনিংস। দুই ওপেনারের ব্যাটেই ১২৩ রান করে ফেলেছিল ব্রিটিশরা। শক্ত ভিতের উপর দাঁড়িয়ে বাকিদের খুব একটা কষ্ট করতে হয়নি।জেসন রয় ৬১ বলে ৬০ রান করেন। আর এক ওপেনার জনি বেয়ারস্টো দুরন্ত ইনিংস খেলে দেন সেমিফাইনালের লক্ষ্যে। ৯৯ বলে ১০৬ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। এই দু’য়ের ব্যাটেই যা হওয়ার হয়ে গিয়েছিল। তিন ও চার নম্বরে নামা জো রপুট ২৪ ও জোস বাটলার ১১ রান করে আউট হয়ে যান। পাঁচ নম্বরে নেমে আরও কিছুটা রান এগিয়ে দেন ইয়ন মর্গ্যান। ৪০ বেল ৪২ রান করেন তনি। এর পর বেন স্টোক ১১, ক্রিস ওকস ৪ ও আদিল রশিদ ১৬ রান করে আউট হয়ে যান।নিউজিল্যান্ডের হয়ে উইকেট দুটো করে উইকেট নেন ট্রেন্ট বোল্ট, ম্যাট হেনরি ও জেমস নিশাম। একটি করে উইকেট মিচেল সাঁতনার ও টিম সাউদির।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা মোটেও ভাল হয়নি কিউইদের। প্রথম থেকে দারুণ ছন্দে থাকা নিউজিল্যান্ড এ দিন যেন ফর্মেই ছিল না। শুরুতেই ধাক্কা খেতে হয় তাদের। নিউজিল্যান্ডের দুই ওপেনার মার্টিন গাপ্তিল ৮ ও হেনরি নিকোলাস ০ রান করে আউট হয়ে যান। ৩০৬ রানের বিরাট লক্ষ্যের জন্য যা বড় সমস্যায় ফেলে দেয় নিউজিল্যান্ডকে। তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ভরসা দিতে পারেননি কিউই অধিনায়ক কেন উলিয়ামসনও। ৪০ বল খেলে ২৭ রান করেন তিনি। রস টেলর আউট হন ২৮ রানে। জেমস নিশাম ১৯ ও কলিন ডে গ্র্যান্ডহোম তিন রান করে ফিরে যান।এর মধ্যেই ব্যাট হাতে লড়াই দিতে শুরু করেন পাঁচ নম্বরে ব্যাট করতে নামা উইকেট কিপার ব্যাটসম্যান টম লাথাম। ৫৭ রান করে আউট হন তিনি। ৪৫ ওভারে ১৮৬ রানে অল-আউট হয়ে যায় নিউজিল্যান্ড।ইংল্যান্ডের হয়ে একটি করে উইকেট নেন ক্রিস ওকস, জোফরা আর্চার, লিয়াম প্লাঙ্কেট, জো রুট ও বেন স্টোকস। পর পর রান আউট হন কেন উইলিয়ামস‌ন ও রস টেলর। তিন উইকেট নেন মার্ক উড।