জন্মদিনের দিনই ধাক্কা মাস্টার ব্লাস্টারের, নোটিস পাঠাল বোর্ড

ওয়েব ডেস্ক, ২৫ এপ্রিলঃ জন্মদিনের দিনই ধাক্কা খেতে হল মাস্টার ব্লাস্টার সচিন তেন্ডুলকরকে। বিসিসিআই-এর ন্যায়পাল ডি কে জৈন স্বার্থের সঙ্ঘাতের জন্য নোটিস পাঠিয়েছেন মাস্টার ব্লাস্টারের কাছে। ঠিক একই কারণে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের নোটিস গিয়েছিল সিএবি সভাপতি তথা দিল্লির পরামর্শদাতা সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের কাছে। বোর্ডের নোটিস পৌঁছেছে ভিভিএস লক্ষ্মণের কাছেও।

Top News

সচিন তেন্ডুলকর ক্রিকেট অ্যাডভাইসরি কমিটির সদস্য। একইসঙ্গে আইপিএলে মুম্বইয়ের মেন্টর হিসাবে কাজ করেন। জানা গিয়েছে, মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেট সংস্থার এক সদস্য সঞ্জীব গুপ্তা স্বার্থের সঙ্ঘাতের অভিযোগ এনে বোর্ডের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। ঠিক একই অভিযোগ সৌরভের দিকেও। সৌরভ একদিকে সিএবি সভাপতি। সঙ্গে আইপিএলে দিল্লি দলের পরামর্শদাতা হিসাবে কাজ শুরু করেছেন। তার উপর তিনি আবার বোর্ডের ক্রিকেট অ্যাডভাইসরি কমিটির সদস্যও। তাই স্বার্থের সঙ্ঘাতের প্রসঙ্গ উঠেছিল। সৌরভ অবশ্য ক্রিকেট অ্যাডভাইসরি কমিটির সদস্য পদ থেকে অব্যহতি নেওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ করেছিলেন। যাতে স্বার্থের সঙ্ঘাতের বিষয়টি এড়ানো যায়।

বোর্ডের নোটিস পৌঁছেছে ভিভিএস লক্ষ্মণের কাছেও। তিনিও ক্রিকেট অ্যাডভাইসরি কমিটির সদস্য। আবার আইপিএলে হায়দরাবাদ দলের সঙ্গে যুক্ত। আগামী ২৮ এপ্রিলের মধ্যে সচিন ও লক্ষ্মণকে স্বার্থের সঙ্ঘাত প্রসঙ্গে জবাব দিতে হবে। যদিও বোর্ডের এক কর্তা বলছিলেন, মুম্বই ফ্র্যাঞ্চাইজির থেকে এক টাকাও নেন না সচিন। ফলে স্বার্থের সঙ্ঘাতের অভিযোগ ধোপে টিকবে না। দিল্লির সঙ্গে সৌরভেরও কোনও আর্থিক চুক্তি হয়নি। সেক্ষেত্রে তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা স্বার্থের সঙ্ঘাতের অভিযোগও ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন বোর্ডের ওই কর্তা।