ইভিএম কারচুপি করে ভোটে জিতেছে বিজেপি, ব্যালট ব্যাবস্থাকে ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি মমতার

 ওয়েব ডেস্ক, ১৮ জুনঃ  এবারের লোকসভা নির্বাচনের পরেই মমতা আওয়াজ তুলেছিলেন ইভিএম কারচুপি করে ক্ষমতায় ফিরেছে বিজেপি। তিনি নতুন দাবি তুলেছিলেন ব্যালটে ভোট দেওয়ার ব্যাবস্থাকে ফিরিয়ে দিতে হবে। মঙ্গলবার কাউন্সিলারদের মনোবল ফেরাতে একটি বৈঠক করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই বক্তব্য রাখতে গিয়ে মমতা বলেন, ‘ এবারের নির্বাচনে ইভিএম কারচুপি করে বিজেপি ক্ষমতায় ফিরেছে, এবং এই রাজ্যেও ব্যাপক ভাবে ইভিএম কারচুপি হয়েছে, না হলে বিজেপি একটি আসনও পেতো না।’তাদের মনোবলকে আরও চাঙ্গা করতে ওই বৈঠকেই শ্লোগান তোলেন মমতা, “ ফিরিয়ে দাও ফিরিয়ে দাও গণতন্ত্র ফিরিয়ে দাও, ফিরিয়ে দাও ফিরিয়ে দাও ব্যালট আমদের ফিরিয়ে দাও। মেশিনে ভোট আর নয়, ব্যালট ফিরিয়ে দাও”।  আগামী পঞ্চায়েত নির্বাচনে ব্যালট পেপারেই ভোট হবে বলে মমতা জানিয়ে দেন । এদিন তিনি বলেন, “ পৌরসভার ভোট রয়েছে সেই নির্বাচনও দেখো নেব আমি।”  এদিন কাউন্সিলরদের উদ্দেশে তিনি বলেন, “ লড়ত শিখুন, আর লড়তে চাইলে প্রথমে ফেস করতে শিখুন,  নিজেদের শক্তিশালি প্রমান করুন ,এলাকায় ঘুরে দাঁড়ান।”

Top News

তবে আজকের বৈঠকে ইভিএম কারচুপি সম্পর্কে ব্যাখ্যা দেন মমতা, তার কথায়, এবারের নির্বাচনে প্রত্যেকটি কেন্দ্রের প্রায় ৩০ শতাংশ বুথেই খারাপ ছিল ইভিএম। তার কথায়, কখনো দেখেছেন কেউ, এত ইভিএম মেশিন একসাথে খারাপ হতে? তাঁর দাবি, এটি বিজেপির ষড়যন্ত্র ছিল। পুরনো ইভিএম বদলে যে নতুন মেশিন আনা হয়েছে, তাতে মকপোল হয়নি। আগে থেকেই নাকি ভোট দেওয়া ছিল। সেই কারনেই এবার বিজেপি আবার ক্ষমতায় এসেছে, এবং এই রাজ্যে কিছু সিট পেয়েছে ওরা।  নাহলে কোনদিন সম্ভব ছিল না এবার বিজেপির ক্ষমতায় আসা ।

উল্লেখ্য, বামআমলে ব্যালটে ভোট ব্যাবস্থার বিরোধিতা করে সুর চড়িয়েছিলেন মমতা। ব্যালটে সাইন্টিফিক রিগিং-এর তথ্য খাড়া করে ইভিএম মেশিনে ভোটের দাবি তুলেছিলেন মমতা। আজ পশ্চিমবঙ্গে ভোটে নিজের দলের অবস্থা খারাপ হওয়ায় এবার ব্যালট ফিরিয়ে দেওয়ার দাবি তুলে উলটপুরান গাইতে দেখা যাচ্ছে মমতাকে।